ঢাকাবৃহস্পতিবার , ১৪ ডিসেম্বর ২০২৩
  1. 1
  2. avi feb
  3. Belugabahis bahis sitesi feb
  4. blackjack-deluxe
  5. bonan feb
  6. casinomhub giris
  7. goo feb
  8. last-news
  9. mars feb
  10. Marsbahisgiris feb
  11. New Post
  12. News
  13. onwin feb
  14. polskie-kasyna
  15. আইন-আদালত

ইউক্রেইনের বৃহত্তম মোবাইল নেটওয়ার্কে সাইবার আক্রমণ

কে এম তারেক অপু
ডিসেম্বর ১৪, ২০২৩ ১:৩৮ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ইউক্রেইনের সবচেয়ে বড় মোবাইল নেটওয়ার্ক কোম্পানি ‘কিইভস্টার’-এর ওপর সাইবার আক্রমণ চালানোর দাবি করেছে এক হ্যাকার দল।

কিইভ বলছে, আক্রমণ চালানো হ্যাকার দলটি রাশিয়ার গোয়েন্দা সংস্থার সঙ্গে জড়িত। আর গেল বুধবার তারা এর দায়ভার স্বীকার করেছে।

মঙ্গলবার কিইভস্টার-এর ওপর চালানো এ সাইবার আক্রমণের প্রভাব পড়েছে ইউক্রেইনের দুই কোটি ৪৩ লাখ মোবাইল গ্রাহক ও ১১ লাখের বেশি ইন্টারনেট ব্যবহারকারীর ওপর। এ ছাড়া, কোম্পানির বিভিন্ন সেবা ও আইটি অবকাঠামোও বড় ক্ষতির মুখে পড়েছে। এমনকি ইউক্রেইনের কিছু অংশে থাকা ‘এয়ার রেইড অ্যালার্ট সিস্টেম’ও বন্ধ হয়ে গেছে এ আক্রমণে।

মেসেজিং সেবা টেলিগ্রামে দেওয়া এক পোস্টে এ সাইবার আক্রমণের দায়ভার নিয়েছে ‘সলন্টসেপিয়ক’ নামে পরিচিত ‘হ্যাক্টিভিস্ট’ দল। এ ছাড়া, হ্যাকাররা যে কিইভস্টারের সার্ভারে প্রবেশ করেছে, তারে প্রমাণ দেখাতে বেশ কিছু স্ক্রিনশটও প্রকাশ করেছে হ্যাকার দলটি।

এ ধরনের সাইবার আক্রমণ চালানোর অভিযোগ ক্রমাগতই নাকচ করে আসছে রাশিয়া।

ইউক্রেইনের নিয়ন্ত্রক সংস্থা ‘স্টেট সার্ভিস অফ স্পেশাল কমিউনিকেশন্স অ্যান্ড ইনফর্মেশন প্রটেক্টরেট’ বিবৃতিতে বলেছে, তারা দেশটির স্থানীয় গোয়েন্দা সংস্থা ‘এসবিইউ’র সঙ্গে এ ঘটনা নিয়ে তদন্ত চালাচ্ছে।

“রাশিয়ার এমন এক হ্যাকার দল এ আক্রমণের দায়ভার নিয়েছে, যারা সরাসরি রাশিয়ার সামরিক বাহিনীর মূল অধিদপ্তরের সঙ্গে সম্পৃক্ত।” –রাশিয়ার সামরিক গোয়েন্দা সংস্থা ‘জিআরইউ’র দিকে ইঙ্গিত দিয়ে বলেছে সংস্থাটি।

“এ আক্রমণ আবারও নিশ্চিত করেছে, ইউক্রেইনের বিরুদ্ধে যুদ্ধে রাশিয়ার অন্যতম অস্ত্র হল সাইবার জগৎকে ব্যবহার করা।” –দায়ভার নেওয়া হ্যাকার দলটির নাম উল্লেখ না করেই বলেছে সংস্থাটি।

এ বছরের শুরুতে ইউক্রেইনের গোয়েন্দা সংস্থা ‘এসএসএসসিআইপি’ দাবি করেছিল, সলন্টসেপিয়ক হ্যাকার দলটি আরেক হ্যাকার দল ‘স্যান্ডওয়ার্ম’-এর অংশ, যাদের আগে থেকেই ‘জিআরইউ’র সঙ্গে সম্পৃক্ততা রয়েছে।

এ প্রসঙ্গে রয়টার্স জিআরইউ’র মন্তব্য জানতে চাইলেও তাদের সঙ্গে তাৎক্ষণিক যোগাযোগ সম্ভব হয়নি।

হ্যাকিংয়ের ঘোষণা দেওয়া টেলিগ্রাম পোস্টে কিইভস্টার-এর ‘উদ্বিগ্ন কর্মীদের’ ধন্যবাদ জানিয়েছে সলন্টসেপিয়ক। মঙ্গলবার এসবিইউ বলেছে, এ আক্রমণের পর তারা একটি রাষ্ট্রদ্রোহের মামলা দায়ের করেছে।

“আমরা কিইভস্টারে আক্রমণ চালিয়েছি কারণ কোম্পানিটি ইউক্রেইনের সামরিক বাহিনী, রাষ্ট্রীয় অবকাঠামো ও নিরাপত্তা বাহিনীর যোগাযোগ ব্যবস্থা সরবরাহ করে থাকে।” –উল্লেখ করা হয় পোস্টে।

“ইউক্রেইনের সামরিক বাহিনীকে সহায়তা দেওয়া অন্যান্য কোম্পানিও প্রস্তুত থাকুন!”

গেল মঙ্গলবার কিইভস্টারের ঘনিষ্ট এক সূত্র রয়টার্সকে বলেছে, এ আক্রমণে ইউক্রেইনের সামরিক বাহিনীর যোগাযোগ ব্যবস্থা ব্যহত হয়নি।

 

এই সাইটে নিজম্ব নিউজ তৈরির পাশাপাশি বিভিন্ন নিউজ সাইট থেকে খবর সংগ্রহ করে সংশ্লিষ্ট সূত্রসহ প্রকাশ করে থাকি। তাই কোন খবর নিয়ে আপত্তি বা অভিযোগ থাকলে সংশ্লিষ্ট নিউজ সাইটের কর্তৃপক্ষের সাথে যোগাযোগ করার অনুরোধ রইলো।বিনা অনুমতিতে এই সাইটের সংবাদ, আলোকচিত্র অডিও ও ভিডিও ব্যবহার করা বেআইনি।